ঢাকা ০৬:১৪ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ০৬ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ২৪ মাঘ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

চুয়াডাঙ্গা পুলিশ লাইনে নতুন নিয়মে কনস্টেবল পদে নিয়োগ কার্যক্রমের চতুর্থ দিন

প্রতিনিধির নাম
  • আপডেট সময় : ০৪:০৭:২৬ অপরাহ্ন, বুধবার, ১৭ নভেম্বর ২০২১ ২২০ বার পড়া হয়েছে
দৈনিক আজকের একাত্তর অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি

 

আবদুল্লা চুয়াডাঙ্গা জেলা প্রতিনিধি

চাকরি নয়, সেবা, সৎ, সাহসী এবং দেশের জন্য যে কোনো চ্যালেঞ্জ গ্রহন করতে সক্ষম, তাহলে আপনাকেই খুঁজছে বাংলাদেশ পুলিশ। মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনা মোতাবেক বাংলাদেশ পুলিশে নতুন নিয়মে ট্রেইনি রিক্রুট কনস্টেবল (টিআরসি) পদে নিয়োগ কার্যক্রম ইতোমধ্যে শুরু হয়েছে।

অদ্য ১৭.১১.২০২১ খ্রিঃ সকাল ০২:০০ ঘটিকায় চুয়াডাঙ্গা পুলিশ লাইন্স ড্রিলসেডে তৃতীয় দিনে উত্তীর্ণ পুরুষ প্রার্থীর সংখ্যা ২৬১জন এবং নারী প্রার্থীর সংখ্যা ১৮জন, সর্বমোট উত্তীর্ণ পুরুষ ও নারী প্রার্থীর সংখ্যা ২৭৯জন প্রার্থীসহ চতুর্থ দিনের নির্ধারিত লিখিত পরীক্ষার জন্য উত্তীর্ণ হয়। চতুর্থ দিনে অত্যন্ত ভাল পরিবেশে পুলিশ লাইন ড্রিলসেডে লিখিত পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়।

চতুর্থ দিনে লিখিত শেষে পরীক্ষার্থীদের উদ্দেশ্যে জনাব মোঃ জাহিদুল ইসলাম, পুলিশ সুপার, চুয়াডাঙ্গা ও নিয়োগ বোর্ডের চেয়াম্যান মহোদয় কনস্টেবল পদে চাকুরি প্রত্যাশিদের উদ্দেশ্যে ব্রিফিং করেন। এ সময় পুলিশ সুপার বলেন, মাননীয় ইন্সপেক্টর জেনারেল অব পুলিশ (আইজিপি), বাংলাদেশ ড. বেনজীর আহমেদ,বিপিএম (বার) মহোদয়ের নির্দেশনায় মেধা ও যোগ্যতার ভিত্তিতে নিয়োগ প্রক্রিয়াটি সফলভাবে সম্পন্ন হবে। যে সকল পরীক্ষার্থী শারীরিক পরীক্ষায় যোগ্য বিবেচিত হয়ে অন্যান্য সকল পরীক্ষায় ভাল করবে শুধুমাত্র তারাই কনস্টেবল পদে নিয়োগ পাবেন। তিনি আরো বলেন, এ বছর যারা ট্রেইনি রিক্রুট কনস্টেবল পদে নিয়োগপ্রাপ্ত হবেন তারা তাদের নিজ যোগ্যতায় নিয়োগ প্রাপ্ত হবে বিধায় তারা এবং তাদের পরিবার যেন কোন প্রকার প্রতারক বা দালাল চক্রের খপ্পরে না পড়ে, এ বিষয়ে সর্তক থাকার জন্য অনুরোধ করেন। যদি কোন প্রতারক বা দালাল চক্র কোন সদস্যের সাথে বা তার পরিবারের সাথে অর্থ লেনদেনের বিষয়ে কথা বলেন, তাহলে সাথে সাথে সরাসরি পুলিশ সুপার চুয়াডাঙ্গা অথবা চুয়াডাঙ্গা জেলার সংশ্লিষ্ট ডিবি, ডিএসবি, থানা, ফাঁড়ী, ক্যাম্প অথবা পুলিশের স্থানীয় বিট অফিসার কে অবহিত করার জন্য অনুরোধ করেন।

উপস্থিত ছিলেন জনাব মোহাম্মদ আমজাদ হোসাইন, এআইজি (প্ল্যানিং অ্যান্ড রিসার্চ-১) বাংলাদেশ পুলিশ পুলিশ হেডকোয়ার্টার্স ঢাকা, নিয়োগ বোর্ডের সদস্য জনাব মোঃ সজিব খান, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার ( প্রশাসন ও অপরাধ), সাতক্ষীরা জেলা, জনাব মুকিত সরকার, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার, খ-সার্কেল, যশোর জেলা। এছাড়াও চুয়াডাঙ্গা জেলা পুলিশের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা ও নিয়োগ কার্যক্রমের সাথে সম্পৃক্ত সকল পুলিশ সদস্যগণ।

নিউজটি শেয়ার করুন

আপনার মন্তব্য

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আপনার ইমেইল এবং অন্যান্য তথ্য সংরক্ষন করুন

আপলোডকারীর তথ্য
ট্যাগস :

চুয়াডাঙ্গা পুলিশ লাইনে নতুন নিয়মে কনস্টেবল পদে নিয়োগ কার্যক্রমের চতুর্থ দিন

আপডেট সময় : ০৪:০৭:২৬ অপরাহ্ন, বুধবার, ১৭ নভেম্বর ২০২১

 

আবদুল্লা চুয়াডাঙ্গা জেলা প্রতিনিধি

চাকরি নয়, সেবা, সৎ, সাহসী এবং দেশের জন্য যে কোনো চ্যালেঞ্জ গ্রহন করতে সক্ষম, তাহলে আপনাকেই খুঁজছে বাংলাদেশ পুলিশ। মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনা মোতাবেক বাংলাদেশ পুলিশে নতুন নিয়মে ট্রেইনি রিক্রুট কনস্টেবল (টিআরসি) পদে নিয়োগ কার্যক্রম ইতোমধ্যে শুরু হয়েছে।

অদ্য ১৭.১১.২০২১ খ্রিঃ সকাল ০২:০০ ঘটিকায় চুয়াডাঙ্গা পুলিশ লাইন্স ড্রিলসেডে তৃতীয় দিনে উত্তীর্ণ পুরুষ প্রার্থীর সংখ্যা ২৬১জন এবং নারী প্রার্থীর সংখ্যা ১৮জন, সর্বমোট উত্তীর্ণ পুরুষ ও নারী প্রার্থীর সংখ্যা ২৭৯জন প্রার্থীসহ চতুর্থ দিনের নির্ধারিত লিখিত পরীক্ষার জন্য উত্তীর্ণ হয়। চতুর্থ দিনে অত্যন্ত ভাল পরিবেশে পুলিশ লাইন ড্রিলসেডে লিখিত পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়।

চতুর্থ দিনে লিখিত শেষে পরীক্ষার্থীদের উদ্দেশ্যে জনাব মোঃ জাহিদুল ইসলাম, পুলিশ সুপার, চুয়াডাঙ্গা ও নিয়োগ বোর্ডের চেয়াম্যান মহোদয় কনস্টেবল পদে চাকুরি প্রত্যাশিদের উদ্দেশ্যে ব্রিফিং করেন। এ সময় পুলিশ সুপার বলেন, মাননীয় ইন্সপেক্টর জেনারেল অব পুলিশ (আইজিপি), বাংলাদেশ ড. বেনজীর আহমেদ,বিপিএম (বার) মহোদয়ের নির্দেশনায় মেধা ও যোগ্যতার ভিত্তিতে নিয়োগ প্রক্রিয়াটি সফলভাবে সম্পন্ন হবে। যে সকল পরীক্ষার্থী শারীরিক পরীক্ষায় যোগ্য বিবেচিত হয়ে অন্যান্য সকল পরীক্ষায় ভাল করবে শুধুমাত্র তারাই কনস্টেবল পদে নিয়োগ পাবেন। তিনি আরো বলেন, এ বছর যারা ট্রেইনি রিক্রুট কনস্টেবল পদে নিয়োগপ্রাপ্ত হবেন তারা তাদের নিজ যোগ্যতায় নিয়োগ প্রাপ্ত হবে বিধায় তারা এবং তাদের পরিবার যেন কোন প্রকার প্রতারক বা দালাল চক্রের খপ্পরে না পড়ে, এ বিষয়ে সর্তক থাকার জন্য অনুরোধ করেন। যদি কোন প্রতারক বা দালাল চক্র কোন সদস্যের সাথে বা তার পরিবারের সাথে অর্থ লেনদেনের বিষয়ে কথা বলেন, তাহলে সাথে সাথে সরাসরি পুলিশ সুপার চুয়াডাঙ্গা অথবা চুয়াডাঙ্গা জেলার সংশ্লিষ্ট ডিবি, ডিএসবি, থানা, ফাঁড়ী, ক্যাম্প অথবা পুলিশের স্থানীয় বিট অফিসার কে অবহিত করার জন্য অনুরোধ করেন।

উপস্থিত ছিলেন জনাব মোহাম্মদ আমজাদ হোসাইন, এআইজি (প্ল্যানিং অ্যান্ড রিসার্চ-১) বাংলাদেশ পুলিশ পুলিশ হেডকোয়ার্টার্স ঢাকা, নিয়োগ বোর্ডের সদস্য জনাব মোঃ সজিব খান, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার ( প্রশাসন ও অপরাধ), সাতক্ষীরা জেলা, জনাব মুকিত সরকার, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার, খ-সার্কেল, যশোর জেলা। এছাড়াও চুয়াডাঙ্গা জেলা পুলিশের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা ও নিয়োগ কার্যক্রমের সাথে সম্পৃক্ত সকল পুলিশ সদস্যগণ।